২২শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, বৃহস্পতিবার, সকাল ৯:৩১
ব্রেকিংনিউজ :

বিপৎসীমার ওপর দিয়ে দেশের ৮ নদীর পানি

সবার কন্ঠ ডেস্ক
  • আপডেট : সেপ্টেম্বর, ২, ২০২১, ৬:৫৩ অপরাহ্ণ
  • ১৮৬ ০৯ বার দেখা হয়েছে
বিপৎসীমার ওপর দিয়ে দেশের ৮ নদীর পানি

 

 

বাংলাদেশের প্রধান নদ-নদীগুলোর পানি বাড়ছেই। বৃহস্পতিবার (২ সেপ্টেম্বর) দেশের আটটি নদীর পানি ১৯টি পয়েন্টের ওপর দিয়ে বইছে বিপৎসীমা । দেশের উত্তর, উত্তর-মধ্যাঞ্চল এবং মধ্যাঞ্চলের ১১ জেলার বন্যা পরিস্থিতির অবনতি আগামী ২৪ ঘণ্টায়ও অব্যাহত থাকতে পারে।

 

বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ পানি উন্নয়ন বোর্ডের বন্যা পূর্বাভাস ও সতর্কীকরণ কেন্দ্র বৃষ্টিপাতের নদ-নদীর অবস্থার প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

 

নদ-নদীর পরিস্থিতি প্রতিবেদনে ও পূর্বাভাসে জানানো হয়েছে, ব্রহ্মপুত্র-যমুনা ও গঙ্গা-পদ্মা নদীর পানি বাড়ছে, যা আগামী ২৪ ঘণ্টা পর্যন্ত অব্যাহত থাকতে পারে।

 

কুশিয়ারা ছাড়া দেশের উত্তর-পূর্বাঞ্চলের আপার মেঘনা অববাহিকার প্রধান নদীগুলোর পানি কমছে জানিয়ে প্রতিবেদনে বলা হয়, পানি কমার এ ধারা আগামী ২৪ ঘণ্টা পর্যন্ত অব্যাহত থাকতে পারে।

 

আগামী ২৪ ঘণ্টায় কুড়িগ্রাম, গাইবান্ধা, জামালপুর, বগুড়া, টাঙ্গাইল, সিরাজগঞ্জ, পাবনা, মানিকগঞ্জ, রাজবাড়ী, ফরিদপুর এবং শরীয়তপুর এ ১১ জেলার নিম্নাঞ্চলের বন্যা পরিস্থিতির অবনতি হতে পারে বলেও জানায় বন্যা পূর্বাভাস ও সতর্কীকরণ কেন্দ্র।

 

কেন্দ্রের নির্বাহী প্রকৌশলী বন্যা পূর্বাভাস ও সতর্কীকরণ মো. আরিফুজ্জামান ভূঁইয়া জানান, আটটি নদীর পানি ১৯টি পয়েন্টে বিপৎসীমার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে।

 

তিনি আরও বলেন, পদ্মা নদীর পানি সুরেশ্বর, ভাগ্যকুল ও গোয়ালন্দ স্টেশনে বিপৎসীমার ওপর দিয়ে বইছে। যমুনা নদীর পানি নয়টি পয়েন্টে বিপৎসীমার ওপরে চলে গেছে। যমুনার পানি ফুলছড়ি, সাঘাটা, বাহাদুরাবাদ, সারিয়াকান্দি, কাজিপুর, সিরাজগঞ্জ, পোড়াবাড়ি, মথুরা ও আরিচায় বিপৎসীমার ওপর দিয়ে বইছে।

 

তাছারা ব্রহ্মপুত্রের পানি হাতিয়া ও চিলমারীতে, ঘাঘট নদীর পানি গাইবান্ধায় এবং ধরলা নদীর পানি কুড়িগ্রামে বিপৎসীমার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে বলেও জানান নির্বাহী প্রকৌশলী।

 

কেন্দ্রীয় বন্যা পূর্বাভাস ও সতর্কীকরণ আরও জানিয়েছে, বুধবার সকাল ৯টা থেকে বৃহস্পতিবার সকাল ৯টা পর্যন্ত গত ২৪ ঘণ্টায় দেশের মধ্যে বান্দরবানে ১১১, কাউনিয়ায় ৬৪, রংপুরে ৭২, চট্টগ্রামে ৫৫, ডালিয়ায় ৯২ ও ঠাকুরগায় ৫৫ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত হয়েছে।

 

তাছারা বাংলাদেশের উজানে ভারতে জলপাইগুড়িতে ১৮৪, তেজপুরে ৬৬ ও দার্জিলিংয়ে ২৮ মিলিমিটার বৃষ্টি হয়েছে বলেও জানিয়েছে বন্যা পূর্বাভাস কেন্দ্র।

 

 

সংবাদটি শেয়ার করে সবাই কে দেখার সুযোগ করে দিন

এ বিভাগের আরো খবর
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত  © ২০২১ সবার কন্ঠ
Design & Developed BY:Host cell BD
ThemesCell